• ঢাকা
  • শনিবার, ১৯ জুন, ২০২১, ৫ আষাঢ় ১৪২৮

অপরাজনীতির শিকার বঙ্গবন্ধু প্রেমী শামিম আহমেদ


FavIcon
নিজস্ব প্রতিবেদক :
প্রকাশিত: এপ্রিল ২০, ২০২১, ০৪:৩২ পিএম
অপরাজনীতির শিকার বঙ্গবন্ধু প্রেমী শামিম আহমেদ

মিথ্যাচার, অপরাজনীতি, অপপ্রচার ও ষড়যন্ত্রের শিকার হচ্ছেন বলে মন্তব্য করেছেন, বঙ্গবন্ধু প্রেমী মোঃশামিম আহমেদ। ঝালকাঠীর একটি কুচক্রী মহল সরকার দলীয় নেতা,কর্মীদের বিরুদ্ধে অপপ্রচারে মেতে উঠেছে । তারা নিজ দলের নেতা কর্মীদের মধ্যে বিরোধ-বিভ্রান্তি সৃষ্টি করে ঘোলা পানিতে মাছ স্বীকার করার ব্যর্থ চেষ্টায় লিপ্ত ।প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আওয়ামী লীগের বিপুলসংখ্যক নেতা-কর্মীর আত্মত্যাগের জন্যই দলটির কেউ ক্ষতি করতে পারেনি। আওয়ামী লীগে অনেক ত্যাগী নেতা ছিলেন বলেই বারবার আঘাত করেও কেউ এ দলকে নিশ্চিহ্ন করতে পারেনি। দেশের স্বাধীনতাসংগ্রাম, গণতন্ত্র ও স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনে ভূমিকা রাখার জন্য দলের সব ত্যাগী নেতার নাম স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে।সম্প্রতি একটি চক্রের স্বীকারে পরিনত জাতীয় শ্রমিক লীগ,ঢাকা মহানগর,উত্তর এর সহ সভাপতি,ঝালকাঠী রোটারী ক্লাবের সভাপতি,ঐতিহ্যবাহী উদ্বোধন মাধ্যমিক বিদ্যালয়,ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি,শাহী ৯৯ জর্দ্দা কোং ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃশামিম আহমেদ। শামিম আহমেদ বলেন,বঙ্গবন্ধুর আদর্শে দীর্ঘ বছর আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত তিনি ।বর্তমানে তিনি ঢাকা মহানগর উত্তরের জাতীয় শ্রমিক লীগের সহ সভাপতি পদে বহাল ধাকা সত্বেও একটি কুচক্রী মহল এটা অস্বীকার করে অপ রাজনীতির স্বীকারে পরিনত করেছে।শামিম আহমেদ আরও বলেন, আমি সব সময় গরীব দুঃখী অসহায় মানুষদের মাঝে সাহায্য সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছি ,তাই এলাকার সবার কাছে তিনি মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপন কারি দানবীর শামিম নামে সু -পরিচিত ।করোনা কালীন ঝালকাঠীর অভিভাবক শ্রদ্ধাভাজন জননেতা আলহাজ্ব আমির হোসেন আমু ভাই (এম,পি) এর নির্দেশে তিনি ঝালকাঠী জেলার বিভিন্ন স্থান সহ বরিশাল,ঢাকা খেটে খাওয়া মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী,নগদ অর্থ,মাকস,সাবান বিতরন করে আসছি।ঝালকাঠী সদরের বিভিন্ন স্থানে বেসিং স্থাপন,সাবান,মাকস,হরিজন সম্প্রদায়ের ঘরে ঘরে খাদ্য ও নগদ অর্থ বিতরন করেন।বঙ্গবন্ধু প্রেমি প্রতিবন্ধিদের মাঝে শেলাই মেসিন,নগদ অর্থ সহ সার্বক্ষনিক তাদের সাহায্য সহযোগিতা করছি ।তিনি আরও বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের সকল সদস্যদের সুস্থতার জন্য মহান আল্লাহর দরবারে প্রতি বছর ঈদুল আজহায় পশু জবাই করে কোরবানী দিয়ে থাকি।



Side banner