• ঢাকা
  • শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৯ আশ্বিন ১৪২৮

আইস ও ইয়াবাসহ ৩ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ


FavIcon
অনলাইন ডেস্ক:
প্রকাশিত: জুলাই ১৫, ২০২১, ০৫:০৫ পিএম
আইস ও ইয়াবাসহ ৩ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ

বন্দর নগরীতে অভিযান চালিয়ে ৮০ গ্রাম ওজনের ক্রিস্টাল মেথ (আইস) ও পাঁচ হাজার ইয়াবা ট্যাবলেটসহ তিন ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে কোতোয়ালি থানা পুলিশ।বুধবার (১৪ জুলাই) দিবাগত রাতে গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) একটি দল ব্রিজঘাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে। গ্রেফতাররা হলেন- মো. ফারুক (৩০) ও মো. তালাল (৩৫) ও মো. জালাল আহাম্মদ (৪৩)।পুলিশ জানায়, কোতোয়ালি থানার ব্রিজঘাট এলাকায় একদল লোক আইস ও ইয়াবা বিক্রির জন্য অবস্থান করছে, এমন খবর পেয়ে সেখানে অভিযান চালানো হয়। অভিযানে সেখানকার হোটেল নেভাল আবাসিকের সামনে রাস্তার ওপর থেকে অবৈধ মাদকদ্রব্যসহ তিন ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছ থেকে ৮০ গ্রাম ওজনের আইস ও পাঁচ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়েছে।
এ বিষয়ে চট্টগ্রাম নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) আরফাতুল ইসলাম বলেন, গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় সংশ্লিষ্ট ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। তাদেরকে আজ (বৃহস্পতিবার) আদালতে পাঠানো হয়েছে।
জানা গেছে, ১৮৮৭ সালে জার্মানিতে মারাত্মক সব ড্রাগের ওপর গবেষণা করতে গিয়ে আবিষ্কৃত হয় ক্রিস্টাল ড্রাগ। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় যুদ্ধবিমানের চালক ও সৈনিকদের সারাক্ষণ নির্ঘুম রাখতে জার্মানি ও জাপানে মাদকটি ব্যবহারে উৎসাহিত করা হতো। পরবর্তীতে এই মাদকের নাম পরিবর্তিত হয়ে কোথাও ক্রিস্টাল মেথ, আইস, এক্সটেসি এবং এলাকাভেদে নানা ছদ্মনামে এর ব্যবহার চালু হয়।১৯৭০ সালে যুক্তরাষ্ট্রে ক্রিস্টাল মেথ নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়। ২০১০ সালে অস্ট্রেলিয়া হয়ে সিঙ্গাপুর, মালয়েশিয়া, লাওস, চীন, থাইল্যান্ড, মিয়ানমার হয়ে বাংলাদেশে মাদকটির ব্যবহার শুরু হয়। ক্রিস্টাল আইস উচ্চমাত্রার একটি মাদক এবং এটি সেবনে অনিদ্রা ও অতি উত্তেজনা তৈরি হয়। মাদকটি ফলে স্মৃতিভ্রম ও মস্তিষ্ক বিকৃতি, স্ট্রোক, হৃদরোগ, কিডনি, লিভার নষ্ট হয়। এছাড়া দাঁতক্ষয়, অতিরিক্ত ঘাম, চুলকানি, রাগ ও আত্মহত্যার মতো ভয়ানক প্রবতাও তৈরি হয়।



Side banner